পঞ্চগড়ে কুয়াশা নিয়ে শুরু হয়েছে শীতের আমেজ

প্রকাশিত : অক্টোবর ১৪, ২০২২ , ১১:২৪ অপরাহ্ণ

ডিজার হোসেন বাদশা, নিজস্ব প্রতিনিধি, পঞ্চগড়, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ঋতু বৈচিত্র্যে শরৎ এর শেষ সময়ে পঞ্চগড়ে শুরু হয়েছে শীতের আমেজ। মৌসুমের প্রথম ঘন কুয়াশা নিয়ে জানান নিতে শুরু করেছে শীত। রাতভর টুপটাপ শব্দে বৃষ্টির মত ঝরছে কুয়াশা। ভোর থেকে নামতেই হালকা শীত ও কুয়াশার চাদরে ঢেকে যাচ্ছে গোটা জেলা। শীত আর কুয়াশার এমন লুকোচুরিতে জেলার গত কয়েকদিনের ভ্যাপসা গরমে জনজীবনে ফিরেছে স্বস্তি। তবে দিনের বেলা আবহাওয়া গরম থাকলেও রাত থেকে সকাল পর্যন্ত অনুভূত হচ্ছে শীত। শুক্রবার (১৪ অক্টোবর) সকাল সড়ে ৮টা পর্যন্ত কুয়াশার কারনে দিনের বেলাতেও মহাসড়কে যানবাহনগুলো হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাফেরা করতে দেখা গেছে। রাত ১০ টার পার থেকে গোটা জেলা কুয়াশায় ঢেকে যায়। মৌসুমের প্রথম এমন ঘন কুয়াশায় হতাশ স্থানীয়রা। এমন কুয়াশা ভরা শীত মৌসুমেও দেখা মেলেনা, গত কাল রাত ১০ টার পর থেকে সকাল ৮ টা পর্যন্ত কুয়াশার ঢেকে থাকে বিস্তৃত অঞ্চল। তবে শীতের পরিমাণ কম থাকলেও কুয়াশা যেন তুষার পাতের মত পরতে দেখা গেছে। আবহাওয়া অফিস বলছে, গত কয়েকদিনে পঞ্চগড়ে লাগাতার বৃষ্টির কারণে শুক্রবার ভোর সকাল থেকে হঠাৎ করে কুয়াশার পরিমাণ বৃদ্ধি পেয়েছে। যতই রাত হচ্ছে শীতের তীব্রতা বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং কুয়াশার ঘনত্ব বৃদ্ধি পাচ্ছে। আগামী দিনগুলোতে শীত ও কুয়াশার তীব্রতা আরও বৃদ্ধি পাবে। তেঁতুলিয়ার ভজনপুর এলাকার জব্বার মিঞা বলেন, গত কয়েক দিনের তুলনায় আজ হঠাৎ কুয়াসার পরিমাণ অনেকটাই বেড়ে গেছে। এর আগে এমন কুয়াশা চলতি সময়ে দেখা মেলেনি। আব্দুস সামাদ নামে আরও একজন বলেন, গতকাল রাত থেকে কুয়াশার পরিমাণ অনেক বেশি দেখা মিলছে। তবে দিনের বেলা আবহাওয়া গরম থাকলেও রাতে শীত ও সকাল কুয়াশা লক্ষ করা যাচ্ছে। এদিকে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় পর্যটকদের আনাগোনায় ভরপুর হয়ে উঠছে বিনোদন কেন্দ্র গুলো। তবে আকাশ মেঘমুক্ত না থাকায় এবং ঘন কুয়াশার কারণে বিশ্বের তৃতীয় উচ্চতম শৃঙ্গ কাঞ্চনজঙ্ঘা দেখতে না পারায় বিমুখ হয়ে ফিরছেন অনেকেই। তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাসেল শাহ্ বলেন, অক্টোবরের শুরু থেকে পঞ্চগড় সহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় বৃষ্টিপাত হতে দেখা গেছে। যার ফলে হঠাৎ করে আজ ঘন কুয়াশা নেমেছে। এতে করে আগামীতে কুয়াশা বৃদ্ধির পাশাপাশি তাপমাত্রা আরও কমে শীত পুরোপুরি নামছে। শুক্রবার (১৪ অক্টোবর) সকাল ৯টায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ২১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা।