নওগাঁর পত্নীতলায় শিক্ষার্থী পেটানোর ঘটনায় সমঝোতা

প্রকাশিত : মে ৩০, ২০২২ , ৭:০০ অপরাহ্ণ

আলহাজ্ব বুলবুল চৌধুরী, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন:নওগাঁর পত্নীতলায় উপজেলা সদর পুঁইয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির সভাপতি কর্তৃক শিক্ষার্থী পেটানোর ঘটনায় শিক্ষার্থী ও বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির মধ্যে সমঝোতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে শিক্ষার্থী, অভিভাবকবৃন্দ, বিদ্যালয়ের শিক্ষক মন্ডলী, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্যবৃন্দ ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সমন্বয়ে উক্ত সমঝোতা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় সভাপতির বিরুদ্ধে থানায় করা অভিযোগ প্রত্যাহারের আবেদনও করা হয় বলে জানান, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোস্তফা আলী। তিনি জানান, শিক্ষার্থীদের মাঝে ভুলবোঝাবোঝির জন্য উভয়ের মধ্যে মারামারি হয়। পরবর্তীতে ঐ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি কর্তৃক জনৈক শিক্ষার্থীকে বেধরক মারপিট করেন বলে তার বিচার চেয়ে মানব বন্ধন অনুষ্ঠিত হয় এবং থানায় অভিযোগ হয়। এব্যাপারে বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় খবরও প্রকাশ হয়। যেহেতু শিক্ষার্থীদের মাঝে ভুলবোঝাবোঝির জন্য উভয়ের মধ্যে মারামারি হয়েছে সেই প্রেক্ষিতে শনিবার বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে বিদ্যালয়ের শিক্ষকবৃন্দ, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্যবৃন্দ ও গন্যমান্য ব্যক্তিদের সমন্বয়ে শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকদের নিয়ে আলোচনার মাধ্যমে উক্ত বিষয়টি সমঝোতা করা হয় এবং পূর্বে ঘটে যাওয়া উক্ত ঘটনার প্রেক্ষিতে থানায় করা অভিযোগ প্রত্যাহারের জন্য আবেদন করেন ঐ শিক্ষার্থীবৃন্দ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির সভাপতি দুলাল, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেক চৌধুরী, আজাদ রহমান, দিলিপ চৌহান, অভিভাবক বুলবুল আহম্মেদ, আমিনুল, মোকছেদুল আলম, জাকির হোসেন, আজাদুল ইসলাম, ইমরুল কায়েশ, সাব্বির হোসেন, আব্দুল হান্নান, এস.এম গোলাম মোস্তফা সহ অন্যান্য শিক্ষক অভিভাবক, শিক্ষার্থীবৃন্দ। অভিযোগের বিষয়ে পত্নীতলা থানার অফিসার ইনচার্জ শামসুল আলম শাহ্ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন পুঁইয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি দ্বারা শিক্ষার্থীকে মারধর করার ঘটনায় উক্ত শিক্ষার্থীর অবিভাবক থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে আমরা তদন্ত শুরু করি, কিন্তু স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ বসে ঘটনাটি মিমাংশা করায় উক্ত অবিভাবক থানায় অভিযোগটি প্রত্যাহার করে নেয়।