ঠাকুরগাঁওয়ে ১০ টাকা টোল কম দেয়ায় নসিমন চালককে মারধর

প্রকাশিত : জুলাই ৭, ২০২২ , ৯:১১ অপরাহ্ণ

বিধান দাস, ঠাকুরগাঁও জেলা প্রতিনিধি, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ৩০ টাকার মধ্যে ১০ টাকা টোল কম দেয়ায় ঠাকুরগাঁওয়ে এক নসিমন চালক ও এক গরুর পাইকারকে বেধড়ক পিটিয়েছে টোল আদায়কারীরা। বৃহস্পতিবার(৭ জুলাই) পৌর শহরের ঠাকুরগাঁও রোড (বালিয়াডাঙ্গী মোড়) নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। টোল আদায়কারীদের মারধরে আহত হন গরুর পাইকার শহিদুল ইসলাম ও নসিমনের চালক জহিরুল ইসলাম। তারা দুজনে সম্পর্কে ভাই। আহতদের বাড়ি বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায়।
সরজমিনে গিয়ে ঠাকুরগাঁও জেলা ট্রাক ট্যাংকলরি ও কাভার্ড ভ্যান মালিক সমিতি এবং শ্রমিক ইউনিয়ন একই রশিদে মালিক ও শ্রমিক যৌথ কল্যাণ ও টার্মিনাল উন্নয়নের নামে প্রতিটি রশিদের বিপরীতে ৩০ টাকা করে টোল আদায়ের সত্যতা পাওয়া যায়।
প্রত্যক্ষদর্শী নসিমনের হেলপার রবিউল ইসলাম বলেন, বালিয়াডাঙ্গী থেকে গরু নিয়ে এক নসিমন ভর্তি গরু মাদারগঞ্জ হাটে বিক্রির উদ্দেশে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিলো। বালিয়াডাঙ্গী মোড়ে ওই সংগঠনের লোকজন টোল আদায় করছিল। ৩০ টাকার জায়গায় ২০ টাকা দেয়াতে ওরা নসিমনের চাবি খুলে নেয়। পরবর্তীতে তাদের বোঝালে ও টাকা দিতে চাইলেও উগ্র আচরণ করে। এক পর্যায়ে ধাক্কাধাক্কি ও মারামারি হয়। আমাদের লোকজনকে তারা একটি রুমে নিয়ে গেছে। গরুগুলো ৪৫ মিনিট যাবৎ রোদে পুড়েছে, তবুও তাড়া ছাড়েননি। ঠাকুরগাঁও জেলা ট্রাক ট্যাংকলরী ও কাভার্ড ভ্যান মালিক সমিতির সভাপতি আসাদুজ্জামান বলেন, টোল আদায়কে কেন্দ্র করে একটি মারপিটের ঘটনা ঘটেছে শোনা মাত্রই আমি সেখানে লোক পাঠিয়েছি। তবে নসিমনের চালক টোল না দিয়ে উল্টো আমাদের টোল আদায়কারীর গায়ে হাত দেয়। যার কারনে শ্রমিকরা একটু ক্ষুব্ধ হয়ে যায়। আমি বিষয়টি সমাধান করে দিয়েছি। এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল হোসেন বলেন, বিষয়টি নিয়ে এখনও কেউ থানায় অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নিবো। ঠাকুরগাঁও পৌরসভার মেয়র আঞ্জুমানআরা বেগম বন্যা বলেন, বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে টোল আদায় নিয়ে মারধরের ঘটনা ন্যক্কারজনক। আমি ঘটনাটা খতিয়ে দেখছি।
এদিকে পৌর শহরে যত্র তত্র টোল আদায়কে চাঁদাবাজি হিসেবে দেখছে পৌরবাসী ও সচেতন মহল। এটা সেটা উন্নয়নের নামে এ টোল আদায় বন্ধের দাবি জানিয়েছেন তারা। এমনকি অধিকাংশ সাধারণ শ্রমিক এসব টোল দিয়ে বিনিময়ে কোন সুবিধা পাননা বলেও জানিয়েছেন উপস্থিত প্রায় ডজন-খানেক চালক। বরং এই টোল আদায়কে কেন্দ্র করে মাঝে মাঝেই নিরীহ শ্রমিকদের উপর মারধর করা হচ্ছে বলে অভিযোগ চালকদের।