পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সাথে T.Rowe Price Group এর কর্মকর্তাগণের বৈঠক

প্রকাশিত : জুলাই ২২, ২০২২ , ৯:৩২ অপরাহ্ণ

ঢাকা, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন:পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের আন্তর্জাতিক বাণিজ্য, বিনিয়োগ ও প্রযুক্তি অনুবিভাগ এবং আইসিটি অনুবিভাগের সাথে যুক্তরাষ্ট্রের পুঁজিবাজারভিত্তিক বৈশ্বিক বিনিয়োগ ব্যবস্থাপনা ফার্ম T.Rowe Price Group, Inc এর প্রতিনিধিগণের একটি বৈঠক গতকাল অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৯৩৭ সালে প্রতিষ্ঠিত এ কোম্পানিটি বর্তমানে ১.৫ ট্রিলিয়ন ইউএস ডলারের পোর্টফোলিও তত্ত্বাবধান করে থাকে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের আন্তর্জাতিক বাণিজ্য, বিনিয়োগ ও প্রযুক্তি অনুবিভাগ এবং আইসিটি অনুবিভাগের মহাপরিচালক ড. সৈয়দ মুনতাসির মামুন ও কর্মকর্তাগণ বৈঠকে অংশগ্রহণ করেন। বৈঠকে T.Rowe Price Group, Inc এর কর্মকর্তাগণ বাংলাদেশে সরাসরি বৈদেশিক বিনিয়োগ বৃদ্ধির জন্য গৃহীত পদক্ষেপ, বাংলাদেশে বিনিয়োগ পরিবেশে আগত পরিবর্তনসমূহ, রপ্তানি নির্ভর বাংলাদেশি অর্থনীতিকে শক্তিশালীকরণের জন্য গৃহীত পদক্ষেপ, বিশেষায়িত অর্থনৈতিক অঞ্চলসমূহের কার্যক্রম ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা করেন। বৈঠকে মহাপরিচালক (আইটিআইটি ও আইসিটি) বাংলাদেশের শক্তিশালী ও দক্ষ মানবসম্পদ, শক্তিশালী অভ্যন্তরীণ বাজার, উদীয়মান স্থানীয় ব্যবসা, ডিজিটালাইজেশন, নারীর ক্ষমতায়ন, কর্মে নারীর ক্রমবর্ধমান অংশগ্রহণ, যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি, এশিয়ার অন্যান্য দেশের সাথে সংযোগ এবং দেশে বিভিন্ন ধরনের বিনিয়োগের সুযোগের বিষয়ে কথা বলেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুযোগ্য নেতৃত্বে বাংলাদেশের প্রাতিষ্ঠানিক সক্ষমতা বর্তমানে অনেকাংশেই বৃদ্ধি পেয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাগণ জানান যে, বেজা, বেপজা, বিডা, পিপিপি, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনসহ সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানসমূহ বাংলাদেশে বিনিয়োগ ও ব্যবসা পরিচালনা সহজ করার জন্য কাজ করছে। মহাপরিচালক জানান, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বিদেশি বিনিয়োগকারীদের সাথে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানসমূহের সেতুবন্ধ হিসেবে কাজ করবে এবং মন্ত্রণালয়ের আন্তর্জাতিক বাণিজ্য, বিনিয়োগ ও প্রযুক্তি অনুবিভাগ বিদেশি বিনিয়োগকারীদের ২৪/৭ সকল ধরনের প্রয়োজনীয় সেবা দিতে প্রস্তুত। বৈঠক শেষে T.Rowe Price Group, Inc এর কর্মকর্তাগণ মতপ্রকাশ করেন যে, তারা বাংলাদেশ সফরে বিভিন্ন বৈঠকে অর্জিত অভিজ্ঞতা থেকে বাংলাদেশের ইতিবাচক দিকগুলো ভালোভাবে অবগত হয়েছেন এবং তাঁরা পুনরায় বাংলাদেশ সফরের ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।