দেশে করোনায় থেকেও তিনগুণ বেশি মানুষ ক্যান্সারের কারণে মারা গেছে

প্রকাশিত : নভেম্বর ২, ২০২২ , ৮:১০ অপরাহ্ণ

ঢাকা, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেক্ট্রনিক ডেটা ট্র্যাকিংসহ জনসংখ্যাভিত্তিক জরায়ু-মুখ ও স্তন ক্যান্সার স্ক্রিনিং কর্মসূচি (ইপিসিবিসিএসপি) প্রকল্পের আওতায় সরকারি স্বাস্থ্য প্রতিষ্ঠানে পরিচালিত ‘জরায়ু-মুখ ও স্তন ক্যান্সার স্ক্রিনিং এবং প্রতিরোধ কর্মসূচি পর্যালোচনার লক্ষ্যে বুধবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের অডিটোরিয়ামে তথ্য ও ফলাফল প্রকাশ এবং পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক। মন্ত্রী বলেন, দেশে করোনায় যত মানুষ গত তিন বছরে মারা গেছে, তার তিনগুণ বেশি মানুষ ক্যান্সারের কারণে মারা গেছেন। ক্যান্সার, কিডনি রোগী দিন দিন আরো বাড়ছে। গত এক বছরে স্তন ক্যান্সারে ১৩ হাজার মানুষ আক্রান্ত হয়েছে যার মধ্যে ৭ হাজার মানুষ মারা গেছে। অন্যদিকে, ৮ হাজার মানুষ জরায়ু ক্যান্সারে আক্রান্ত ছিল, যার মধ্যে ৫ হাজার মানুষ মারা গেছে। এভাবে দেশে বছরে প্রায় দেড় লাখ মানুষ ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়, যার মধ্যে প্রায় এক লাখ মানুষই মারা যায়। সুতরাং বোঝাই যাচ্ছে, ক্যান্সার চিকিৎসায় আমাদের কতটা জোর দিতে হবে, গুরুত্ব দিতে হবে। এই গুরুত্ব বিবেচনা করেই দেশের ৮ বিভাগে ৮ টি অতি উন্নতমানের ক্যান্সার, কিডনি হাসপাতাল নির্মাণ করা হচ্ছে। এই হাসপাতালগুলো নির্মিত হলে ক্যান্সার চিকিৎসায় দেশেই বড় ধরনের সাফল্য আসবে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. শারফুদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন নার্সিং ও মিডওয়াইফারি অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) রাশেদা আকতার, স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এ কে এম আমিরুল মোরশেদ, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) খান মো. রেজাউল করিম এবং ইউএনএফপিএ’র হেলথ চিফ বিহাবেন্দ্র এস রঘুবংশীসহ অন্যান্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ।