পার্বত্য অঞ্চলের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর শিক্ষার্থীরা দেশে বিদেশে সুনাম বয়ে আনছে

প্রকাশিত : নভেম্বর ২৬, ২০২২ , ১০:৩৬ পূর্বাহ্ণ

বান্দরবান, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং বলেছেন, পার্বত্য অঞ্চলের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর শিক্ষা, ক্রীড়া, সংস্কৃতি ও মেধা মনন বিকাশে সরকার বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা প্রদান করছে। পার্বত্য অঞ্চলের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী ছাত্রছাত্রীদের আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত করে স্বাবলম্বী করতে বিদ্যালয়গুলোকে আধুনিকভাবে গড়ে তোলা হচ্ছে। তিনি বলেন, ম্রো ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীরা শিক্ষা, সাংস্কৃতিক, ক্রীড়া ক্ষেত্রে দেশে বিদেশে সুনাম বয়ে আনছে। শুক্রবার বান্দরবান জেলা সদরে ম্রো আবাসিক উচ্চ বিদ্যালয়ের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্যাপন ও বিদ্যালয়টির উন্নয়ন কাজ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। পার্বত্য মন্ত্রী বীর বাহাদুর বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পার্বত্য এলাকার জনগণের আর্থ-সামাজিক অবস্থার উন্নয়নে কাজ করছেন। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে পার্বত্য জেলাগুলোতে স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, মেডিকেল কলেজ গড়ে তোলা হচ্ছে। ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী পাহাড়ি ছাত্রছাত্রীরা এসব প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হওয়ার সুযোগ পাচ্ছে। দেশের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে এখানকার ছাত্রছাত্রীরা কাজের সুযোগ পাচ্ছে। মন্ত্রী বলেন, এ অঞ্চলের ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী মানুষের জীবন ও জীবিকার মান আগের চেয়ে অনেক উন্নত হয়েছে। পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের বাস্তবায়নে ২ কোটি ৭৯ লাখ টাকা ব্যয়ে ম্রো আবাসিক বিদ্যালয় ভবনের হোস্টেল ভবন, কারিগরি ভবন, বিদ্যালয়ের হলরুম, বিদ্যালয়ের সীমানা প্রাচীর, মূল ফটক ও মাঠ উন্নয়ন কাজের উদ্বোধন করা হয়। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান নিখিল কুমার চাকমা, বান্দরবান জেলা প্রশাসক ইয়াছমিন পারভীন তিবরীজি, পুলিশ সুপার মোঃ তারিকুল ইসলাম, পার্বত্য জেলা পরিষদের সদস্য ক্য সা প্রু, লক্ষ্মীপদ দাস, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের বান্দরবান ইউনিটের নির্বাহী প্রকৌশলী আবু বিন মোঃ ইয়াছির আরাফাত, বান্দরবান প্রেসক্লাবের সভাপতি মোঃ আমিনুল ইসলাম বাচ্চু, সাধারণ সম্পাদক মিনরুল হক মিনার এবং ম্রো আবাসিক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ মহিন উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।