জেলা পরিষদ নির্বাচনে ময়মনসিংহ বিভাগে আওয়ামী লীগের নতুন দুই মুখ

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ১১, ২০২২ , ৭:৫১ অপরাহ্ণ

অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান, ফারুক আহম্মেদ চৌধুরী, এডভোকেট অসিত কুমার সরকার এবং চন্দন কুমার পাল।

মোঃ আজিজুর রহমান ভূঁঞা বাবুল, ব্যুরো প্রধান, ময়মনসিংহ, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ১৭ অক্টোবর সারাদেশের ন্যায় ময়মনসিংহ বিভাগের ৪ জেলায়ও অনুষ্ঠিত হবে ‘জেলা পরিষদ নির্বাচন’। এ নির্বাচনে গেলবারের মতো দলীয় প্রার্থী দিয়েছে ক্ষমতাসীন দল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। ময়মনসিংহ বিভাগের দুইটি জেলায় এবার দুইজন নতুন মুখ বেছে নিয়েছে আওয়ামী লীগ। শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারি বাসভবন গণভবনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের সভায় দেশের ৬১টি জেলা পরিষদের দলীয় প্রার্থীর নাম চূড়ান্ত করা হয়। চূড়ান্ত তালিকা অনুসারে ময়মনসিংহ বিভাগের চার জেলায় দলীয় প্রার্থীরা হলেন, ময়মনসিংহ জেলায় জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও বর্তমান প্রশাসক অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান, জামালপুর জেলায় জেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও বর্তমান প্রশাসক ফারুক আহম্মেদ চৌধুরী, নেত্রকোণা জেলায় এডভোকেট অসিত কুমার সরকার, শেরপুর জেলায় চন্দন কুমার পাল। অধ্যাপক ইউসুফ খান পাঠান ও ফারুক আহম্মেদ চৌধুরী আগে থেকেই জেলা পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। তারা বর্তমান জেলা পরিষদ প্রশাসক হিসেবে স্ব স্ব জেলায় দায়িত্ব পালন করে আসছেন। তবে নেত্রকোণা আর শেরপুরে এবার নতুনদের চেয়ারম্যান প্রার্থী করেছে আওয়ামী লীগ। এডভোকেট অসিত কুমার সরকার ও চন্দন কুমার পাল এবারই প্রথমবারের মতো জেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থী হলেন। উল্লেখ্য, নির্বাচন কমিশন ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, জেলা পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় ১৫ সেপ্টেম্বর, মনোনয়নপত্র বাছাই ১৮ সেপ্টেম্বর, মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের বিরুদ্ধে আপিল দায়েরের সময় ১৯ থেকে ২১ সেপ্টেম্বর, আপিল নিষ্পত্তি ২২ থেকে ২৪ সেপ্টেম্বর, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় ২৫ সেপ্টেম্বর। প্রতীক বরাদ্দ ২৬ সেপ্টেম্বর, সর্বশেষ ভোট গ্রহণ ১৭ অক্টোবর।