নারীর প্রতি সহিংসতারোধে সকলকে একসাথে কাজ করার আহ্বান

প্রকাশিত : নভেম্বর ২৩, ২০২২ , ৭:৫৯ অপরাহ্ণ

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা, সংগৃহীত চিত্র।

ঢাকা, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেছেন, নারী নির্যাতন এটা কোনো দেশের একক সমস্যা নয়। এটা বৈশ্বিক সমস্যা। নারী নির্যাতন মানবাধিকার লঙ্ঘন করে। তিনি বলেন, সময়ের পরিবর্তনের সাথে নারী নির্যাতনের ধরনও পরিবর্তিত হচ্ছে। প্রতি তিনজনে একজন নারী তার জীবন পরিক্রমায় শারীরিক, মানসিক বা যৌন নির্যাতনের শিকার হয়। নারীর প্রতি সহিংসতা ও বাল্যবিয়ে সামাজিক সমস্যা এবং নারীর অধিকারের বিরুদ্ধে সংঘটিত অপরাধ।
বুধবার ঢাকায় হোটেল সোনারগাঁওয়ে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়, জাতিসংঘ এবং এলসিজিওয়েজ এর যৌথ উদ্যোগে ১৬ দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষের উদ্বোধন অনুষ্ঠান এবং ন্যাশনাল ডায়ালগে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন। প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা নারীর প্রতি সহিংসতারোধে সরকারের সাথে সকলকে একসাথে কাজ করার আহ্বান জানিয়ে বলেন, সরকারের সাথে বেসরকারি সংস্থা, উন্নয়ন সহযোগী, নাগরিক সমাজ, রাজনৈতিক সংগঠন, স্বেচ্ছাসেবী মহিলা সংগঠন, স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান, কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ এবং গণমাধ্যম ঐক্যবদ্ধ হয়ে সচেতনতা তৈরির মাধ্যমে নারীর প্রতি সহিংসতা রোধ করতে হবে। প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারী উন্নয়ন, ক্ষমতায়ন ও নারীর প্রতি সহিংসতারোধে বিভিন্ন নীতি, আইন, কৌশল ও কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়ন করে যাচ্ছেন। বাংলাদেশে উন্নয়নের সকল ক্ষেত্রে নারীরা দক্ষতার সাথে কাজ করছে। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ হাসানুজ্জামান কল্লোল। বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউএন রেসিডেন্ট কোঅর্ডিনেটর গোয়েন লুইস এবং বাংলাদেশে নিযুক্ত সুইডেনের রাষ্ট্রদূত আলেকজান্ড্রা বার্গ ভন লিন্ডে। স্বাগত বক্তব্য রাখেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মুহিবুজ্জামান। ২৫শে নভেম্বর, নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস ও জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধে ১৬ দিনব্যাপী প্রচারাভিযান ২৫শে নভেম্বর থেকে শুরু করে ১০ই ডিসেম্বর- আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবসে শেষ হয় । নারীর প্রতি সহিংসতাকে মানবাধিকারের সাথে সম্পর্কিত করা এবং এ ধরনের সহিংসতা যে মানবাধিকার লঙ্ঘন তার ওপর গুরুত্ব আরোপ করার জন্য বিশ্বের বিভিন্ন দেশে প্রতি বছর নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস এবং জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ পক্ষ পালিত হয়। বিশ্বের অন্যান্য দেশের সাথে বাংলাদেশেও প্রতি বছর আড়ম্বরপূর্ণভাবে এই দিবস এবং জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ পক্ষ পালিত হয়। এবছর জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ পক্ষের আন্তর্জাতিক প্রতিপাদ্য হলো: ‘Orange the World: Unite! Activism to End Violence against Women & Girls’/‘সবার মাঝে ঐক্য গড়ি, নারী ও শিশু নির্যাতন বন্ধ করি’। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন দপ্তর ও সংস্থার প্রধানগণ। এছাড়াও মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও যুগ্মসচিববৃন্দ, বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও সংস্থার কর্মকর্তাবৃন্দ, বেসরকারী সংস্থা ও উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার প্রতিনিধিবৃন্দ; নাগরিক সমাজের নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন মিডিয়ার প্রতিনিধিবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধে প্যানেল আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। প্যানেল আলোচনাটি সঞ্চালন করেন ইউএনডিপি বাংলাদেশ এর জেন্ডার স্পেশালিস্ট শারমিন ইসলাম।