৫০ হাজার টাকা করে পেলেন সাফ জয়ী ময়মনসিংহের কলসিন্দুর কন্যাদের ৮ পরিবার

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ২১, ২০২২ , ১১:৪৩ অপরাহ্ণ

ময়মনসিংহ ব্যুরো, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: প্রথম বারের মতো সাফ জয় করে ইতিহাস গড়া ময়মনসিংহের সীমান্ত ঘেঁষা প্রত্যন্ত পাহাড়ি জনপদ ধোবাউড়া উপজেলায় কলসিন্দুর গ্রামের আট নারী ফুটবলারের পরিবারকে ৫০ হাজার টাকা করে মোট ৪ লাখ টাকা পুরস্কার দিয়েছে ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসন। বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিকেলে কলসিন্দুর গ্রামে ফুটবলার সানজিদার বাড়িতে গিয়ে তার বাবা-মায়ের হাতে নগদ টাকা তুলে দেন ময়মনসিংহ অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার আনোয়ার হোসেন। পরে তিনি কলসিন্দুর স্কুল মাঠে গিয়ে ফুটবলার শামসুন্নাহার ও মারিয়া মান্ডাসহ বাকি খেলোয়াড়দের বাবা-মা ও পরিবারের সদস্যদের হাতে নগদ ৫০ হাজার টাকা ও ফুলের তোড়া তুলে দেন। এরপর কলসিন্দুর মাঠে অনুশীলন-রত ক্ষুদে নারী ফুটবলারদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন প্রশাসনের কর্মকর্তারা। এসময় প্রান্তিক পর্যায়ে নারী ফুটবলারদের সব ধরনের পৃষ্ঠপোষকতা দেওয়ারও আশ্বাস দেন অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার। এ সময় ময়মনসিংহের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) পুলক কান্তি চক্রবর্তী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ফৌজিয়া নাজনীন, সহকারী কমিশনার ভূমি কর্মকর্তা ফাতেমা জান্নাত, ভাইস চেয়ারম্যান আবুল ফজল, সেলিমা খাতুন, অফিসার ইনচার্জ টিপু সুলতান, কলসিন্দুর উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিনতি শীল, কোচ মফিজ উদ্দিন, জুয়েল মিয়াসহ জেলা প্রশাসন ও উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, ময়মনসিংহ নগরী থেকে ৭০ কিলোমিটার দূরে গারো পাহাড়ের কোলে ধোবাউড়া উপজেলার কলসিন্দুর গ্রাম। এ গ্রাম থেকেই বেড়ে উঠেছে এক-ঝাঁক নারী ফুটবলার। যাদের আটজনই ছিলেন সদ্য সাফ জয়ী টিমে। সানজিদা, মারিয়া মান্দা, শিউলি আজিম, মারজিয়া আক্তার, শামছুননাহার সিনিয়র, তহুরা খাতুন, সাজেদা খাতুন, শামছুননাহার জুনিয়রদের এমন সাফল্যে তাই গর্বিত কলসিন্দুর তথা গোটা ময়মনসিংহ-বাসী,সেইসাথে পুরো বাংলাদেশ। এদিকে ফুটবলারদের দেশে আসার খবরে কলসিন্দুর গ্রামে বইছে আনন্দের বন্যা। অধীর আগ্রহে পরিবারের সদস্য ও এলাকাবাসী সানজিদা, মারিয়াদের বরণ করার অপেক্ষায় আছেন তারা। আর তাঁদের পরিবারেও চলছে বাঁধ ভাঙা উচ্ছ্বাস।