বাকশক্তি না হারালে নজরুল বাংলা সাহিত্যকে অনেক বেশি সমৃদ্ধ করতে পারতেন

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ১, ২০২২ , ৯:০৬ অপরাহ্ণ

ঢাকা, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেছেন, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম তাঁর ৭৬ বছরের জীবনকালে ৩৪ বছর ১২০ দিন নির্বাক ছিলেন। নজরুলের আবির্ভাব এমন এক সময়ে যখন বাংলা সাহিত্যের বিভিন্ন শাখায় কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর দোর্দণ্ড প্রতাপে রাজত্ব করছিলেন। রবীন্দ্রনাথ সাহিত্য চর্চা করেছেন ৬২ বছরেরও অধিক। আর অসুস্থতার কারণে নজরুল সাহিত্য চর্চা করতে পেরেছিলেন ৩০ বছরেরও কম সময়। অসুস্থতা নজরুলকে স্পর্শ না করলে নজরুল বাংলা সাহিত্যকে কোথায় নিয়ে যেতেন তা সহজেই অনুমেয়। নির্বাক না হলে নজরুল বাংলা সাহিত্যকে অনেক বেশি সমৃদ্ধ করতে পারতেন। অধিষ্ঠিত করতে পারতেন আরো উচ্চ আসনে, উচ্চ শিখরে। প্রতিমন্ত্রী বৃহস্পতিবার রাজধানীর দিলকুশাস্থ কৃষি ভবন সেমিনার হলে চন্দ্রাবতী একাডেমি আয়োজিত নজরুল গবেষক এ এফ এম হায়াতুল্লাহ সংকলিত ‘নজরুল সাহিত্যের মণিমঞ্জুষা’ শীর্ষক গ্রন্থের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক জাতিসত্তার কবি মুহম্মদ নূরুল হুদার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. সৌমিত্র শেখর দে এবং কবি নজরুল ইনস্টিটিউটের নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ জাকীর হোসেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, এ এফ এম হায়াতুল্লাহ একজন বিশিষ্ট নজরুলপ্রেমী ও নজরুল গবেষক। নজরুলের সৃষ্টিশীল কর্মের আদ্যোপান্ত তাঁর জানা। আর সেজন্যই নজরুলের বাণী সংকলিত করে ‘নজরুল সাহিত্যের মণিমঞ্জুষা’ শিরোনামের এক অসাধারণ গ্রন্থ আমাদের উপহার দেয়া তাঁর পক্ষে সম্ভব হয়েছে। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন চন্দ্রাবতী একাডেমির স্বত্বাধিকারী কামরুজ্জামান খন্দকার কাজল। নজরুল সংগীত পরিবেশন করেন বিশিষ্ট সংগীতশিল্পী প্রিয়াংকা গোপ।