ঘোড়াশাল পাওয়ার স্টেশন হবে বিদ্যুতায়নের আধুনিক হাব

প্রকাশিত : ডিসেম্বর ৬, ২০২২ , ১২:০০ পূর্বাহ্ণ

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, সংগৃহীত চিত্র।

ঘোড়াশাল, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন, ঘোড়াশাল পাওয়ার স্টেশন হবে বিদ্যুতায়নের আধুনিক হাব। এ হাব নরসিংদী-টুঙ্গিসহ আশপাশে মানসম্পন্ন নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহে সহযোগিতা করবে। সাবস্টেশন ও জিআইএস সুইচিং স্টেশন বিদ্যুতের মান সমন্বিত রেখে দূর-দূরান্তে ছড়িয়ে দেবে। প্রতিমন্ত্রী সোমবার ঘোড়াশাল পাওয়ার স্টেশন পরিদর্শনকালে এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ঘোড়াশাল বাংলাদেশের বিদ্যুতায়নের প্রথমদিকের হাব। বঙ্গবন্ধুর ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় ১৯৭৪ সালে প্রথন ইউনিট কমিশনিং হয়েছিল। দ্বিতীয় ইউনিট ১৯৭৬ সালে কমিশনিং হলেও বঙ্গবন্ধু পরিকল্পনা ও প্রচেষ্টাতেই সকল কাজ সম্পন্ন হয়েছিল। এ পাওয়ার হাবের আধুনিকায়নের কাজ চলছে । এখান থেকে ১ হাজার ৩৮০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ পাওয়া যাবে। ঘোড়াশাল পাওয়ার স্টেশনের প্রথম ও দ্বিতীয় ইউনিট ইতিমধ্যে বন্ধ (Retired) হয়েছে। তৃতীয় ও চতুর্থ ইউনিট রি-পাওয়ারিং করা হয়েছে। পঞ্চম, ষষ্ঠ ও সপ্তম ইউনিট সচল রয়েছে। সঞ্চালন লাইনের আধুনিকায়নের জন্য পিজিসিবি কাজ করছে। পরিদর্শনকালে অন্যান্যের মাঝে পিডিবির চেয়ারম্যান মোঃ মাহবুবুর রহমান ও পিজিসিবির ব্যবস্থাপনা পরিচালক গোলাম কিবরিয়া উপস্থিত ছিলেন।