আগামী জুনের মধ্যে আখাউড়া আগরতলা রেললাইন চালু হবে

প্রকাশিত : ডিসেম্বর ১১, ২০২২ , ৮:৫৯ অপরাহ্ণ


রেলপথ মন্ত্রী মোঃ নূরুল ইসলাম সুজন, সংগৃহীত চিত্র।

আখাউড়া, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: রেলপথ মন্ত্রী মোঃ নূরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, বাংলাদেশ এবং ভারতের মধ্যে নির্মাণাধীন আখাউড়া থেকে আগরতলা পর্যন্ত নতুন রেললাইন আগামী জুনের মধ্যে চালু হয়ে যাবে। মন্ত্রী রবিবার সংশ্লিষ্ট প্রকল্প পরিদর্শনের সময় আগরতলা সংলগ্ন জিরো পয়েন্ট এলাকায় উপস্থিত সাংবাদিকদের সামনে এ ঘোষণা দেন। রেলপথ মন্ত্রী এ সময় বলেন, উভয় দেশের জন্য আখাউড়া-আগরতলা রেললাইন সংযোগটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই লাইনটি চালু হলে দুই দেশের মধ্যে ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার ঘটবে, পাশাপাশি মানুষ সহজে দু’দেশের মধ্যে যাতায়াত করতে পারবে। ইতিপূর্বে তিনবার সময় বৃদ্ধি করা হয়েছে, নতুন করে সময় বাড়বে কি না সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবের মন্ত্রী বলেন, অধিকাংশ কাজই সম্পন্ন হয়েছে এখন যতটুকু কাজ আছে আশা করা যায়, জুনের মধ্যে তারা সম্পন্ন করতে পারবে। আখাউড়া-লাকসাম প্রকল্প সম্পর্কে প্রশ্ন করা হলে মন্ত্রী বলেন, প্রকল্পটি তিনি আজ পরিদর্শন করেছেন। সে প্রকল্পের অগ্রগতি সন্তোষজনক। আগামী ১৫ই জানুয়ারির মধ্যে ১৭ কিলোমিটার রেললাইন যাতায়াতের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে। ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর বাধার মুখে কিছু জায়গার কাজ স্থগিত আছে এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, পরিদর্শনের সময় কিছু নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। যেখানে বাধা দেওয়া আছে সে অংশটি রেখে বাকি অংশের কাজ এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য, আখাউড়া-আগরতলা রেললাইন প্রকল্পটি ভারতীয় অনুদানে নির্মিত হচ্ছে। প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি ৬৭ শতাংশ। আগরতলা থেকে আখাউড়া পর্যন্ত বাংলাদেশ অংশের দৈর্ঘ্য ৬ দশমিক ৮ কিলোমিটার। পরিদর্শনের সময় বাংলাদেশ রেলওয়ের পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন, লাকসাম-আখাউড়া প্রকল্পের পরিচালক মোঃ শহিদুল ইসলাম, পূর্বাঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী ও আখাউড়া-আগরতলা প্রকল্পের পরিচালক আবু জাফর মিয়া সহ ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ও বাংলাদেশ রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।