নিখোঁজ নওমুসলিম ফারুকের সন্ধান চেয়ে সংবাদ সম্মেলন

প্রকাশিত : অক্টোবর ১৯, ২০২২ , ৮:০৮ অপরাহ্ণ

ইয়াকুব নবী ইমন, নিজস্ব প্রতিনিধি, নোয়াখালী, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ব্যবসায়ীক কাজে নোয়াখালী থেকে নারায়নগঞ্জ গিয়ে নিখোঁজ নওমুসলিম ওমর ফারুক আনছারীর সন্ধান চেয়ে মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন করেছে পরিবারের সদস্যরা ও এলাকাবাসী। মঙ্গলবার বিকালে সেনবাগ উপজেলার কেশারপাড় ইউনিয়নের উত্তরপাড়া দাওয়াতুল ঈমান মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে এই মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় ওমর ফারুককে ফিরে পেতে প্রধানমন্ত্রী ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন স্ত্রী সারমিন আক্তার লিমা, পিতা নওমুসলিম আবু বক্কর ছিদ্দিক, মা শান্তি রানী বিশ্বাসসহ এলাকাবাসী। গত ৩ অক্টোবর ব্যবসায়ীক কাজে নারায়ণগঞ্জে যায় ওমর ফারুক আনচারী ও সহপাঠী তানভিন। দুপুরে সেখানকার গাউচিয়া পাঁচতলা মসজিদ এলাকায় অবস্থান কালে অজ্ঞাত দুই ব্যক্তি তাকে ডাকে নিয়ে যায় বলে জানায় তার সহপাঠী তানভিন। এর পর তানভিন দীর্ঘক্ষণ ফারুকের জন্য অপেক্ষা করে ফারুকের পরিবারের সদস্যদের বিষয়টি জানায়। এ ঘটনায় ৪ অক্টোবর ওমর ফারুকের মা শান্তি রানী বিশ্বাস রূপগঞ্জ থানায় সাধারণ ডায়েরী করেন। কিন্তু দীর্ঘ ১৬দিন অবিবাহিত হলেও নিখোঁজ ওমর ফারুক আনছারীর কোন সন্ধান না পেয়ে পরিবারের সদস্যরা উদ্বেগ, উৎকণ্ঠার মধ্যে দিন কাটাচ্ছে। প্রসঙ্গত, ওমর ফারুক প্রকাশ আনছারী নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার কাঞ্চন পৌরসভার কালাদী গ্রামের পিতা নওমুসলিম আবু বক্কর ছিদ্দিক (সাবেক নাম শ্রী মন্টু বিশ্বাস) ছেলে। ৬-৭ বছর আগে ওমর ফারুক প্রকাশ আনছারী সনাতন হিন্দু ধর্মত্যাগ করে মুসলিম ধর্মগ্রহণ করেন। এরপর তার পিতা শ্রী মন্টু বিশ্বাসও ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে আবু বক্কর ছিদ্দিক নাম ধারণ করেন। পিতা-পুত্র দুইজন ঢাকায় একটি ভাড়া বাসায় থাকত। বিগত ৫ বছর পূর্বে কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার দৌলখা ইউনিয়নের বাম হাজী বাড়ির নুর ইসলামের মেয়ে সারমিন আক্তার লিমাকে বিয়ে করেন নওমুসলিম ওমর ফারুক। সেই সুবাদে পুত্রের শ্বশুর বাড়িতে ১টি ঘর ভাড়া নিয়ে থাকেন পিতা আবু বক্কর ছিদ্দিক। ফারুক শ্বশুর বাড়ির পাশে নোয়াখালীর সেনবাগের উন্দানিয়া উত্তরপাড়া এলাকায় একটি মাদরাসা স্থাপন করেন এবং ক্ষুদ্র ব্যবসার সাথে জড়িত ছিলেন।