হাতিয়াতে পুলিশের সামনেই স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের ওপর হামলা

প্রকাশিত : জুন ১৩, ২০২২ , ৭:১৯ অপরাহ্ণ

ইয়াকুব নবী ইমন, নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন:নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলার চানন্দী ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের উপর পুলিশের উপস্থিতিতে হামলার ঘটনা ঘটেছে। সোমবার সাড়ে ১১টার দিকে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আজহার উদ্দিনের সমর্থকরা ভূমিহীন বাজারে এ হামলা চালায়। এ সময় পুলিশ হামলাকারীদের সমর্থন দেয় এবং উল্টো আহতদের আটক করে বলেও অভিযোগ করেছে স্বতন্ত্র প্রার্থী। হামলায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর চীফ এজেন্ট বেলালসহ ৫ সমর্থক হয়েছে। তারা হচ্ছেন, আলমগীর হোসেন, শামীম আহমেদ, বাসু ও চাঁন মিয়া। এর মধ্যে আহত অবস্থায় বেলাল, আমলগীর ও শামীমকে আটক করে পুলিশ। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সকালে একটি দোকানে বসেছিল চানন্দী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সীফ এজেন্ট বেলালসহ কয়েকজন। হঠাৎ নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর ৩০-৩৫জন সমর্থক লাঠিসোঠা নিয়ে ভূমিহীন বাজারে মিছিল নিয়ে এসে হামলা চালায়। এ সময় ঘটনাস্থলে পুলিশ থাকলেও পুলিশের উপস্থিতিতে এবং প্রত্যক্ষ সহযোগিতায় তারা বেলাল ও ঘোড়া প্রতীকের অপর সমর্থকদের উপর হামলা চালায়। পরে পুলিশ আহত অবস্থায় তিনজনকে আটক নিয়ে যায়। স্বতন্ত্র-প্রার্থী আমিরুল ইসলাম বলেন, তার কোনো কর্মসূচিই ছিল না। তার সমর্থকরা একটি দোকানে বসা অবস্থায় ছিল, এর মধ্যে হঠাৎ করে নৌকা প্রতীকের সমর্থকরা লাঠিসোঠা নিয়ে এসে হামলা চালায়। এ সময় পুলিশ নৌকা প্রতীকের সমর্থকদের সহযোগিতা করে এবং তার আহত সমর্থকদের আটক করে। এ বিষয়ে স্থানীয় মোরশেদ বাজার পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ হেলাল উদ্দিন অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, তারা উভয় পক্ষকে শান্ত করার চেষ্টা করেছেন। একটি গুজবকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে হামলা-পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটে।