বিএনপি জামায়াতের সকল ষড়যন্ত্র রাজপথেই প্রতিহত করা হবে

প্রকাশিত : জুন ১, ২০২২ , ৫:২৮ অপরাহ্ণ

ঢাকা, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম বলেছেন, বিএনপি-জামায়াতের সকল ষড়যন্ত্র ও নৈরাজ্য কঠোরভাবে প্রতিহত করা হবে। বিএনপি জানে তাদের দুর্নীতি, দুঃশাসন আর জন-বিচ্ছিন্নতার কারণে মানুষ তাদেরকে ভোট দিবে না। বিএনপি মধ্যযুগীয় কায়দায় জীবন্ত মানুষ পুড়িয়ে মেরেছে। ঐ নারকীয় অগ্নি-সন্ত্রাসের কথা মানুষ ভুলে যায়নি। বিএনপি নামক অগ্নি-সন্ত্রাসীদের দলকে মানুষ আর ভোট দিবে না। বিএনপির জন্য মানুষের কাছে কেবল ঘৃণাই রয়েছে, মানুষ তাদের বিশ্বাস করে না। আর সে কারণেই তারা নির্বাচনে যেতে চায় না। যার ফলে আগামী নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে নানামুখী ষড়যন্ত্র ও অপ-তৎপরতা চালাচ্ছে বিএনপি। বেশি বাড়াবাড়ি করলে ফলাফল ভালো হবে না। আওয়ামী লীগ মাঠে নামলে পালাবার পথ পাবেন না। বুধবার শরীয়তপুরের সখিপুরের বালারবাজারে চরসেনসাস ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বর্ধিত সভা এবং সদস্য সংগ্রহ ও নবায়ন কর্মসূচিতে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। উপ-মন্ত্রী শামীম বলেন, বিএনপি এদেশে সন্ত্রাস ও নৈরাজ্য সৃষ্টি এবং স্থিতিশীলতা নষ্ট করে বাংলাদেশের সার্বভৌমত্বকে নস্যাৎ করার লক্ষ্যে ১০ ট্রাক অবৈধ অস্ত্র পাচার করতে গিয়ে ধরা পড়েছিল। বাংলাদেশের মানুষ জানে, বিএনপির হাতে এদেশের সার্বভৌমত্ব নিরাপদ নয়। বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের সময় তারেক জিয়া এদেশের হাজার হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচার করেছে। খালেদা জিয়াও এতিমের টাকা মেরে খেয়েছে। এগুলো এদেশের মানুষ ভোলে নাই। তাদের জনগণের কাছে ক্ষমা চাওয়া উচিত। উপমন্ত্রী আরো বলেন, বিএনপি-জামায়াতের জন্মই হয়েছে অপরাজনীতির মাধ্যমে। নির্বাচনে হেরে যাওয়ার ভয়ে নির্বাচন কেন্দ্রে হামলা-ভাঙচুর, বোমা মেরে পালিয়ে যাওয়া বিএনপির পুরনো অভ্যাস। নিজেরা বোমা ফাটিয়ে দলের নেতাদের দিয়ে বিবৃতি দেয়া নতুন কিছু নয়। তাদের এ কাজগুলো মানুষ ঘৃণা করে। তারা জনগণ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। জনগণ তাদের সঙ্গে নেই। আর কোনো সুযোগ দেয়া হবে না; রাজপথেই ওদের প্রতিহত করা হবে। চরসেনসাস ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ওয়াদুদ বালার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মফিজ মাদবরের সঞ্চালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন, সখিপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ভেদরগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মো. হুমায়ুন কবির মোল্যা, সাধারণ সম্পাদক আতিকুর রহমান মানিক সরকার, সহ-সভাপতি জিতু মিয়া বেপারী, আনোয়ার হোসেন বালা প্রমুখ।