বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্যদিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জে আওয়ামী লীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

প্রকাশিত : জুন ২৩, ২০২২ , ১:৩১ অপরাহ্ণ

মোঃ আশরাফুল ইসলাম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ১৯৪৯ সালের ২৩ জুন এ দিনে আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠিত হয়। পরবর্তীতে বাংলাদেশের স্বাধীনতাসহ বিভিন্ন গণতান্ত্রিক আন্দোলনে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখে আওয়ামী লীগ। ইতিহাস ও ঐতিহ্যের রাজনৈতিক সংগঠন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের গৌরবের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী চাঁপাইনবাবগঞ্জে বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্যদিয়ে পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে বৃহস্পতিবার জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে সকাল সাড়ে ৮ টায় জেলা শহরের শহীদ মনিমুল হক সড়কে দলীয় কার্যালয় চত্বরে জাতীয় সঙ্গীতের মধ্যদিয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। এরপর বেলা সোয়া ১১ টায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভা পার্ক থেকে বিশাল বর্ণাঢ্য র‍্যালী বের করা হয়। র‍্যালীর অগ্রভাগে বিশাল জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা বহন করে। পরে আ’লীগের নেতৃবৃন্দরা বঙ্গবন্ধু মুক্ত-মঞ্চে এসে বঙ্গবন্ধু’র প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ শেষে নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজের শহীদ মিনারের পাদদেশে সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় মিলিত হয়। জেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি সাবেক এমপি মুহা. জিয়াউর রহমানের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম সম্পাদক শরিফুল আলমের সঞ্চালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন সংগঠনটির সহ-সভাপতি মোঃ রুহুল আমিন, সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি মোঃ আব্দুল ওদুদ, যুগ্ম সম্পাদক ডা. সামিল উদ্দিন আহমেদ শিমুল এমপি, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মোঃ মোখলেসুর রহমান প্রমুখ। বক্তারা বলেন, প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সুদীর্ঘ পথ পরিক্রমায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ বাঙালি জাতির ভাষার আন্দোলন, স্বাধীনতার সংগ্রাম ও মহান মুক্তিযোদ্ধাসহ সকল গণতান্ত্রিক এবং সাধারণ মানুষের ভাত ও ভোটের অধিকার আদায়ের আন্দোলনে নেতৃত্বে সুমহান গৌরব অর্জন করেছে। সর্বকালের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্মরণ করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের চলমান উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে হবে তবেই প্রকৃত অর্থে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠিত হবে। বক্তারা আরো বলেন, দেশে এখনো ষড়যন্ত্র চলছে, ঐক্যবদ্ধ এসব ষড়যন্ত্রকারীদের বিরুদ্ধে দাঁড়াতে হবে। এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি ও শিবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সৈয়দ নজরুল ইসলাম, সহ-সভাপতি মোঃ আব্দুল মতিন, সদর উপজেলা আ.লীগের সভাপতি আজিজুর রহমান, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল জলিল, সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ মোঃ রোকনউজ্জামান, জেলা আ’লীগের দপ্তর সম্পাদক আরিফুর রেজা ইমন, উপ-দপ্তর সম্পাদক মোঃ মনিরুল ইসলাম, জেলা স্বেচ্ছাসেবক-লীগের সভাপতি মোহাঃ আব্দুল আওয়াল গণি জোহা, সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফায়জার রহমান কনক, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাহিদ শিকদার, সাধারণ সম্পাদক সাইফ জামান আনন্দসহ আ.লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। পরে, বঙ্গবন্ধুসহ তার পরিবারের অন্যান্য সদস্য, জাতীয় ৪ নেতাসহ অন্যান্য নেতাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া এবং সেইসাথে দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনা করে দোয়া অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে যাঁরা দেশের জন্য আত্মাহুতি দিয়েছে সেসব বীর শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। শেষে বিশাল কেক কাটার মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।