বাংলাদেশ আজ দুর্যোগের ঝুঁকি ব্যবস্থাপনায় বিশ্বে রোল মডেল

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ৮, ২০২২ , ১০:৫১ অপরাহ্ণ

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মোঃ এনামুর রহমান, সংগৃহীত চিত্র।

গাজীপুর, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মোঃ এনামুর রহমান বলেছেন, দুর্যোগ মোকাবেলার পথিকৃত ছিলেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। যার দূরদর্শী নেতৃত্ব আর আদর্শ আমাদের দেখিয়েছে দুর্যোগ মোকাবেলার পথ। আর তাঁরই সুযোগ্য কন্যা, মানবতার জননী, জননেত্রী শেখ হাসিনার দৃঢ় নেতৃত্বে উজ্জীবিত বাংলাদেশ আজ দুর্যোগের ঝুঁকি ব্যবস্থাপনায় বিশ্বে রোল মডেল। প্রতিমন্ত্রী বৃহস্পতিবার গাজীপুরের সারাহ রিসোর্ট সেন্টারে আয়োজিত ট্রেনিং, এক্সারসাইজ এন্ড ড্রিলস এর বেসিক ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট প্রশিক্ষণের ৩য় ব্যাচের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। প্রতিমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর নির্দেশনায় ঘূর্ণিঝড় ও বন্যা হতে মানুষের জানমাল রক্ষার্থে মাটির কিল্লা নির্মাণ করা হয়, যা সর্বসাধারণের কাছে মুজিব কিল্লা নামে পরিচিত। তারই আদলে আধুনিক রূপে উপকূলীয় ও বন্যা উপদ্রুত ১৪৮টি উপজেলায় ৫৫০টি মুজিব কিল্লা নির্মাণ, সংস্কার ও উন্নয়ন কার্যক্রম চলমান। উপকূলীয় দুর্গত জনগণ যেমন সেখানে আশ্রয় নিতে পারবে তেমনি তাদের প্রাণিসম্পদকে ঘূর্ণিঝড় ও জলোচ্ছ্বাসের ক্ষয়ক্ষতি থেকে রক্ষা করতে পারবে। উপকূলীয় এলাকায় বয়স্ক, গর্ভবতী, শিশু ও প্রতিবন্ধিতাবান্ধব ৩২০টি বহুমুখী ঘূর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়েছে। এসব আশ্রয়কেন্দ্রে প্রায় দুই লাখ ৫৬ হাজার বিপদাপন্ন মানুষ এবং প্রায় ৪৪ হাজার গবাদিপশুর আশ্রয় গ্রহণের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। সামুদ্রিক ঘূর্ণিঝড় ও জলোচ্ছ্বাসের পূর্বাভাস ঘোষণার সাথে সাথে মানুষ তাদের গবাদিপশুসহ এসকল আশ্রয়কেন্দ্রে স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তায় আশ্রয় নিতে পারবেন।