ঠাকুরগাঁওয়ে ট্রেনের সাথে ট্রাকের সংঘর্ষে ২জন আহত

প্রকাশিত : জানুয়ারি ২২, ২০২৩ , ৮:২৯ অপরাহ্ণ

বিধান দাস, নিজস্ব প্রতিনিধি, ঠাকুরগাঁও, ব্রডকাস্টিং নিউজ কর্পোরেশন: ঠাকুরগাঁওয়ের শিবগঞ্জে রাস্তা পারাপারের সময় ট্রাক ও পঞ্চগড় থেকে ছেড়ে আসা ঢাকা গামী পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনের সংঘর্ষে ট্রাক চালক সোহেল রানা ও ১৩ মাস বয়সী শিশু আশা আহত হয়েছে। রবিবার ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রামপুর আমতলী এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। সোহেল ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার আরাজী কেশুরবাড়ী গ্রামের সোলায়মান আলীর ছেলে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, রেল লাইনের উপরে ট্রাক চলতি পথে উঠে গেলে সে সময় ট্রেনের ধাক্কায় ট্রাকের বডি ভেঙ্গে যায় এবং ট্রেনটি অদূরে গিয়ে বন্ধ হয়ে যায়, এতে ট্রেনের ইঞ্জিন বিকল হয়ে পড়ে। এ ঘটনায় ঢাকার সাথে পঞ্চগড়ের রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। আহত ট্রাক চালক সোহেল রানাকে প্রথমে ঠাকুরগাঁও ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে রেফার্ড করেন। ফায়ার সার্ভিস ও পুলিশ ট্রাকটিকে রেল লাইন থেকে সরানোর চেষ্টা চালাচ্ছেন। দুর্ঘটনায় ভেঙে যাওয়া ট্রাকটি ঠাকুরগাঁও রোড এলাকার ব্যবসায়ী সাজ্জাদুর রহমানের। স্থানীয়রা জানান, জনবহুল এলাকা হওয়া সত্যেও রেল ক্রসিংটিতে কোন গেট ম্যান নেই। গেট-ম্যান থাকলে এধরনের দুর্ঘটনা ঘটতো না । ঠাকুরগাঁও রোড রেলওয়ে স্টেশনের স্টেশন মাস্টার আখতারুল ইসলাম বলেন, দুর্ঘটনার কারণে ট্রেন চলাচলে বিঘ্ন ঘটেছে। রেললাইনে থাকা ট্রাকটি ট্রাকটি সড়িয়ে রেল চলাচল স্বাভাবিক করা হয়েছে। ঠাকুরগাঁও ফায়ার স্টেশনের কর্মকর্তা ওয়্যারহাউস ইন্সপেক্টর সরোয়ার হোসাইন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ট্রাক-চালককে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় রেলওয়ে ও ফায়ার সার্ভিসের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অবগত করা হয়। ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক করতে ক্রেনের সাহায্যে লাইন থেকে ট্রাকটি সরিয়ে নেওয়া হয়। ঠাকুরগাঁও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মিথুন সরকার বলেন, আহত ব্যক্তিকে আমরা উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে প্রেরণ করি। রেল লাইনের উপরে ট্রাক থাকায় পঞ্চগড়ের সাথে ঢাকার রেল যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। পরে দ্রুততম সময়ের মধ্যে তা সরিয়ে ফেলা হয়।